নেত্রকোনার খালিয়াজুরীতে নির্বাচনী সহিংসতায়

নেত্রকোনার খালিয়াজুরীতে নির্বাচনী সহিংসতায় , আহত হওয়ার তিন সপ্তাহ পর শৈলেন ভৌমিক (৫৮) নামে এক কৃষক মারা

গেছেন। সোমবার দুপুরে নিজ বাড়িতে তিনি মারা যান। শৈলেন ভৌমিক দাউদপুর গ্রামের মৃত হরগোবিন্দ ভৌমিকের ছেলে।এলাকার

কয়েকজন বাসিন্দা ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত ২৮ ডিসেম্বর পঞ্চম ধাপে খালিয়াজুরী উপজেলার ছয়টি ইউনিয়নের মধ্যে চারটিতে

নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে দাউদপুর গ্রামের অজিত মহলনবিশ চাকুয়া ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ড থেকে সদস্য পদে জয়ী হন। .

পরাজিত হন একই গ্রামের যতীন্দ্র মহলানবিশ।পরদিন দুপুরে যতীন্দ্র ও অজিতের সমর্থকদের মধ্যে হাতাহাতি হয়। হামলায় অজিতের

সমর্থক শৈলেন ভৌমিক, বিপ্লব, অনিক, অপুসহ বেশ কয়েকজন গুরুতর আহত হন। স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে খালিয়াজুরী

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। পরে অবস্থার অবনতি হলে শৈলেন ভৌমিককে

নেত্রকোনা থেকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। প্রায় এক সপ্তাহ হাসপাতালে থাকার পর বাড়ি ফিরেছেন

নেত্রকোনার খালিয়াজুরীতে নির্বাচনী সহিংসতায়

তিনি। অবস্থার অবনতি হলে সোমবার বিকেলে তার মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে স্থানীয় পুলিশ লাশ উদ্ধার করে।এ ব্যাপারে খালিয়াজুরী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মজিবুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, শৈলেনের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মঙ্গলবার সকালে নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হবে। সংঘর্ষের পর অজিত মহলনবিশ বাদী হয়ে ২৫ জনকে আসামি করে থানায় মামলা করেন। ময়নাতদন্তে হত্যার অভিযোগ প্রমাণিত হলে মামলাটি হত্যা মামলায় পরিণত হবে। আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।নেত্রকোনাখালিয়াজুরীইউপি নির্বাচন ময়মনসিংহ বিভাগের মোউ: লীগে ‘বিদ্রোহী’ প্রার্থী হওয়ার কারণে তাদের স্পিডবোটের ব্যবসা বন্ধ করার অভিযোগ রয়েছে দুজনের বিরুদ্ধেবিদ্রোহী দুই প্রার্থীকে নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়াতে চাপ দিতে জেলা আওয়ামী লীগ ও স্পিডবোট মালিক সমিতির নেতারা তাদের স্পিডবোট বন্ধ করে দিয়েছেন।উ: লীগে ‘বিদ্রোহী’ প্রার্থী হওয়ার কারণে তাদের স্পিডবোটের

ব্যবসা বন্ধ করার অভিযোগ রয়েছে

ব্যবসা বন্ধ করার অভিযোগ রয়েছে দুজনের বিরুদ্ধেভালুকায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর নির্বাচনী অফিস ভাংচুরের অভিযোগগতকাল বিকেলে উপজেলার ক্লাব বাজার এলাকায় মোস্তাফিজুর রহমানের নির্বাচনী কার্যালয় ভাংচুর করা হয়। ভারাডোবা ইউপি নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী শাহ আলমের সমর্থকরা এ হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।ভালুকায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর নির্বাচনী অফিস ভাংচুরের অভিযোগমাদারীপুরে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় ১২ জন গ্রেফতারপুলিশের দায়ের করা মামলায় ইতিমধ্যে ১২ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদের মধ্যে তিনজন আশঙ্কাজনক অবস্থায় মাদারীপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। বাকি ৯ আসামিকে সোমবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে রিমান্ডে নেওয়া হয়।মাদারীপুরে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় ১২ জন গ্রেফতারমাদারীপুরে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে ১৫ জন আহত হয়েছেনপ্রথমে মুখোমুখি

আরো পড়ুন 

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *